বাবার বিয়ে(০৩ পর্ব)নুসরাত মাহিন

গল্পঃবাবার বিয়ে (পর্বঃ০৩)

লেখাঃনুসরাত মাহিন

ক’দিন থেকে মায়ের শরীরটা ভালো না কিছু খাতে পারেনা বমি করে, মাঝে মঝে বুকে ব্যথা উঠে। বিকালে ডাক্তার চাচা মাকে দেখতে আসবে।

ওদিকে বড় আপু আমাদের চিন্তায় কাঁদতে কাঁদতে অসুস্থ হয়ে গেছে।

মায়ের হৃদরোগের সমস্যা হইছে। ডাক্তার চাচা মাকে শহরে নিয়ে ভালো ডাক্তার দেখাতে বলেছে।

বাবা ব্যবসায় কাজ নিয়ে অনেক ব্যস্ত মাকে নয়ে ডাক্তার দেখানোর সময় নাই অথচ আগে মায়ের সামান্য জ্বর হলেও চিৎকার চেঁচামেচি করে বাড়ি মাথার তুলতো মাকে জোড় করে ডাক্তার কাছে নিয়ে যেতে।

বাবা মায়ের প্রতি তোমার শেই ভালোবাস গেলো কোথায়..?

স্ত্রী প্রতি, সন্তানের প্রতি তোমার ভালোবাস এত তাড়াতাড়ি ভাগ গেলো।

ছোট আপু আর বড় মামাকে খবর দেওয়া হয়েছে আগামিকাল এসে মাকে ঢাকা নিয়ে যাবে।

আমারা চার বোন ভালো রেজাল্ট করলে বাবা খুসিতে এলাকা সবাইকে মিষ্টি খাওয়াতো । ছোট আপু কুয়েটে চান্স পেয়েছে বাবা হয়তো ভুলে গেছে সেই খুশিরর দিনগুলোর কথা।

আমার বার্ষিক পরীক্ষা চলছে আর দুইটা পরীক্ষা বাকি আছে তাই মায়ের সাথে ঢাকা যেতে পারবোনা।

মা বাসায় নেই এই সুজগে ছোট মা আমাকে দিয়ে বাড়ির সব কাজ করিয়েছে। বাড়িতে তিন জন কাজের লোক থাকা সত্বেও মশলা বাটা, কাপোড় ধোয়া, থালাবাটি ধোয়া, সমস্ত বাড়ির উঠান ঝাড়ু দেওয়াইছে।

বাবা তুমি তো একবার ও খোঁজ নিলেনা আমি কেমন আছি?? তুমি কি কিছু দেখোন আগেতো এক গ্লাস পানিও নিজের খেতে দিতে না।

শুনেছি মা মরলে বাপ হয় তালোই আর আমার মা থাকতে বাপ হইছে তালোই।

হাতের ঠোসকা পোরে গেছে ব্যথ্যায় জ্বর উঠছে। সারাদিন তেমন কিছু খাইনি শুধু দুপুরে কলা আর এক পিচ রুটি খেয়েছিলাম। অনেক রাত খুব খিদা পায়েছে খেতে গিয়ে দেখি আমার জন্য গুরা মাছের চরচোরি আর ডাল রাখা যা আমি খাই না রুমে এসে শুয়ে পড়লাম কিন্তু খিদায় ঘুম আসছে না।

আজ বুঝালাম খুদার জ্বালা কি কোন দিন না খেয়ে থাকিনি মা জোড় করে খায়িয়ে দিত। আগে রাতে মাঝে মাঝে ঘুমিয়ে পরতাম বাবা প্লেটে করে খাবার এনে ঘুম থাকে উঠিয়ে খায়িয়ে দিত। ঐ সব দিন গুলো এখন শুধু দীর্ঘশ্বাস আর স্মৃতি।

বার বার শুধু সুকান্ত ভট্টাচার্যের কবিতাটা মনে পরছে।

হে মহাজীবন, আর এ কাব্য নয়।

এবার কঠিন, কঠোর গদ্যে আনো।

পদ- ললত্য ঝাঙ্কার মুছে যাক।

প্রয়োজন নেই কবিতার স্নিগ্ধত।

কবিতা তোমায় দিলাম ছুটি

ক্ষুধার রাজ্যে পৃথিবী গদ্যময় পূর্নিমার চাঁদ যেন ঝলসানো রুটি।

জমিলা খালা বুঝতে পেরেছিল আমার খুব খুধা লাকছে। উনি এসে আমাকে জিঙ্গেস করলো কি গো মা খিদা লাকছে।

–আমি মাথা নাড়ালাম।

— বেডি একটা হারামি এত কোইরা কইলাম ছোট মনি গুরামাছ খায় না ওর জন্য ইলিশ মাছের বড় দুইডা টুকরা রাইখা দাও অসুস্থ সারাদিন ভাত খায়নায়। হারামি বেডি শুনলো না ইচ্ছা কইরা তোমার ঐ কুটনি ফুফুগো সব মাছ দিয়া ভাত খাওয়াইয়া দিল। আম্মাগো তুমি একটু অপেক্ষা কর আমি তোমার লইগা ভাত নিয়া আইতাছি।

সর্বশেষ আপডেট

জমিলা খালা ডিম ভাজি, বেগুন ভাজি করে আনছে নিজে হাতে আমাকে খায়িয়ে দিল। উনিতো আমার রক্তের কেউ না চারটা ছয়টা বছর আমাদের বাড়ি কাজ করে তার ও আমার প্রতি এত ভালোবাসা।

আমার হাতে রক্তপড়া দেখে কাঁদে দিছে দুই হাত ধরে অসখ্য চুমু খাইছে। শুধু একটা কথা বলতে ছিল আম্মাগো তোমারে দিয়া কাজ করতে মানা করছিলাম। মাগীর জি মাগী আমাগো সবাইরে ভয় দেহাইছে আমারা তোমার কাজ কইরা দিলে বাড়ি থেকে তাড়াইয়া দেবে। খিদার জ্বালা বড় জ্বালা অভাবের কাছে আমাগো হাত পা বাঁধা এই বুড়া বয়সে কোই জামু।

বাবা তোমার সাথে আমার রক্তের সম্পর্ক আমার জন্মদাতা পিতা।
তোমার কি আমার জন্য একটুও মায়া লাগেনা…?

ভাইটা আমারে দেখলে খিল খিল করে হেসেদেয় দু’হাত বারিয়ে কোলে নিতে বলে।
সকালে আমাকে দেখে চাচির কোল থাকবে না । আমার কোলে আসছে কি যে খুশি ছোট মা দেখেই আমার কোল থেকে জোড় করে ভাইটাকে টেনে নিয়ে গেলো। মা আলাদা তাতে কি বাবা তো একি ও আমার রক্তের ভাই। আমাদের কি কোন অধিকার নেই ভাইটাকে কোলে নেবার।

ছোট মা ভোররাতে এসে আমাকে ঘুম থেকে ডেকে তুলেছে কাজ করানোর জন্য। প্রতিবছর শিতের দিন খেজুরের রস দিয়ে গুড় বানায়। আজ গুর বানাবে বড় পাতিলে করে রস জালাচ্ছে। আমি দাঁড়িয়ে আছি ছোট মা এক জগ গরম রস এনে ইচ্ছা করে আমার পায়ের উপর ফেলে দিয়েছে।

বাবার বিয়ে(০৩ পর্ব)নুসরাত মাহিন

আমি শুধু মাগো করে একটা চিৎকার দিছি তারপর আর কিছু মনে নেই।
আমার ডান পায়ের হাটু থেকে পায়ের পাতা পর্যন্ত চামড়া উঠে মাংস বেরিয়ে গেছে ব্যথায় কাতরাচ্ছি। কবিরাজ চাচা এসে কিসব ছাল বাকল দিয়ে পা বেঁধে দিয়ে গেছে।

মাগো তুমি তাড়াতাড়ি চলে আসো দেখো তোমার ছোট মনিটার কি হাল করেছে। ওরা মেরে ফেলবে আমাকে।

মুক্তা আপা ছোট বেলা থেকে আমাদের বাসায় আছে ওনাকে কখন বাসার কাজের লোক হিসাবে দেখিনি। খুব ভালোবাসে আমাকে গত দুদিন ধরে এক গ্লাস পানি ও মুখে দেইনি আমি অসুস্থ তাই। আপুর একটা রেডিও আছে প্রতিদিন নয়টার সময়ে ঢাকা বেতারে ছায়াছবির গান হয় আমি বাসায় থাকলে মুক্তা আপুর সাথে বসে গান শুনু। শুয়ে থেকে ভালো লাকছে না আপুকে রেডিও ছাড়তে বলছি। আমি গান শুনতেছি আপু আমার পা পরিস্কার করে দিচ্ছে। রেডিও তে একটা গান হচ্ছে…

মন্দ হোকা আর ভালো হোক বাবা আমার বাবা পৃথিবীতে বাবা মত আর আছে কেবা।

স্বর্গের মত ছিল আমাদের ঘর যেখানে ছিল শুধু সোহাগ আর আদর।

সেই ঘর থেকে বাবা হারিয়ে গেলো আমার কপালে তাই দুঃখ এলো।

আজ বুঝেছি আমি বাবা কি ছিলো….

আমার খুব কষ্ট হচ্ছে বুক ফেটে কান্না আসছে চিৎকার করে কেঁদে আমার ও বলতে ইচ্ছা করছে..

ভালো হোক আর মন্দ হোক বাবা আমার বাবা পৃথিবীতে বাবার মত আর আছে কেবা।

চলবে..

বাবার বিয়ের সব গল্প পড়ুন

admin

Recent Posts

ফেসবুক থেকে ভিডিও ডাউনলোড করার উপায়

তথ্য প্রযুক্তির এই যুগে সারা বিশ্বের যুবক-শিশু-বৃদ্ধ কম-বেশ ফেসবুকের সাথে পরিচিত রয়েছে। ২০১৭ সালে ফেসবুক বছরের প্রান্তিক আয় ঘোষণার সময়…

1 সপ্তাহ ago

বিবাহের জন্য পাত্রী নির্বাচন করবেন যেভাবে

মানব জাতির মধ্যে পৃথিবীতে সর্বশ্রেষ্ঠ সম্পর্ক হলো স্বামী-স্ত্রীর সম্পর্ক,এর চেয়ে উত্তম সম্পর্ক পৃথিবীতে আর আসবে না।এবং পৃথিবীতে সর্বপ্রথম সম্পর্কও স্বামী-স্ত্রীর(আদম-হাওয়ার)।রাসুল(সাঃ)…

2 সপ্তাহ ago

এলার্জি থেকে চিরতরে মুক্তি পাওয়ার উপায়।। ১০০% কার্যকরী।।

এলার্জি!পৃথিবীর সকল মানুষের মধ্যেই কম-বেশ এলার্জি অবশ্যই থাকে।কারো শরীরে বেশি কারো শরীরে কম পার্থক্য এইখানেই।তবে অতিরিক্ত এলার্জি কতটুকু কষ্টকর তা…

2 সপ্তাহ ago

তাড়াতাড়ি ঘুম আসার সহজ উপায়।। ১০০% কার্যকরী।।

ঘুম!পৃথিবীতে সবচেয়ে শান্তি ও আরামদায়ক মুহূর্ত হচ্ছে ঘুম।ঘুম আমাদেরকে পরবর্তী দিনের কাজ-কর্ম করার জন্য চাঙা করে তুলে।সারাদিন কাজ-কর্ম ও খেলাধুলা…

2 সপ্তাহ ago

হস্তমৈথুনের উপকারিতা ও অপকারিতা এবং মুক্তির উপায়

হস্তমৈথুন (Masturbation) কি? হস্তমৈথুন বা স্বমেহন (Masturbation)  হচ্ছে এক ধরণের বিকৃত যৌনক্রিয়া।যা শয্যাসঙ্গিনী/সঙ্গী ছাড়া হাত কিংবা সেক্সটয় এর মাধ্যমে নারী/পুরুষ যৌনসুখ উপভোগ করার চেষ্টা করে…

2 সপ্তাহ ago

বাবার বিয়ে(শেষ পর্ব)নুসরাত মাহিন

গল্পঃবাবার বিয়ে(পর্বঃ১০) লেখাঃনুসরাত মাহিন মধুর আমার মায়ের হাসি চাঁদের মুখে ঝরে মাকে মনে পরে আমার মাকে মনে পরে। দেখতে দেখতে…

2 সপ্তাহ ago